দেশের সকল সরকারি চাকরির তথ্য সবার আগে মোবাইলে নোটিফিকেশন পেতে মোবাইলে রাখুন Android App: Jobs Exam Alert 

এবার ইতিহাস গড়তে যাচ্ছেন পেশার বুমরা। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে এজবাস্টন টেস্টে করোনা আক্রান্তের জন্য পাওয়া যায়নি অধিনায়ক রোহিত শর্মাকে। দ্বিতীয়বার করোনা টেস্ট করেও তার ফল এসেছে পজিটিভ। তাই তিনি এজবাস্টন টেস্ট থেকে বাদ পড়ছেন।

এই সুযোগে দলের অধিনায়কত্ব করবেন অন্যতম সেরা পেশার বুমরা। তার সাথে সহ অধিনায়কত্ব করবেন ঋসভ পন্থ।

শুক্রবার বিকাল সাড়ে ৩টায় ইংল্যান্ড দলের অধিনায়ক জস বাটলারের সঙ্গে টস করতে দেখা যাবে বুমরাকে। আর এরই সঙ্গে ছেলেদের টেস্টে ভারতকে নেতৃত্ব দেওয়া ৩৬তম খেলোয়াড় হতে যাচ্ছেন বুমরা। পাশাপাশি ইতিহাসও গড়তে যাচ্ছেন ভারত দলের মূল পেসার।

প্রথম বিশেষজ্ঞ ফাস্ট বোলার হিসেবে ভারতকে টেস্টে নেতৃত্ব দিতে যাচ্ছেন বুমরা। এর আগে পেসার হিসেবে ভারতকে নেতৃত্ব দিয়েছেন কপিল দেব (৩৪ টেস্ট), লালা অমরনাথ (১৫ টেস্ট), বিজয় হাজারে (১৪ টেস্ট) ও গুলাব্রাই রামচাঁদ (৫ টেস্ট)। তবে তাদের সবাই ছিলেন মূলত অলরাউন্ডার। ৩৫ বছর পর আজ পেসারের অধীনে টেস্ট খেলবে ভারত।

সবশেষ ১৯৮৭ সালে পেসার কপিল দেবের নেতৃত্বে টেস্ট খেলেছে ভারত। বুমরার অবশ্য কোনো পর্যায়ের ক্রিকেটেই সেভাবে নেতৃত্বের অভিজ্ঞতা নেই। এর আগে প্রথম শ্রেণির কোনো ম্যাচে দেশকে নেতৃত্ব দেননি তিনি। তবে শ্রীলংকা সিরিজে ভারতের সহ-অধিনায়ক ছিলেন। সে সময় অধিনায়কত্ব নিয়ে প্রশ্ন করা হলে বুমরা বলেছিলেন, ‘যদি যেকোনো দৃশ্যপটে সুযোগ দেওয়া হয়, আমার জন্য সেটি সম্মানের হবে। কখনোই পিছপা হব না, তবে এমন নয় যে এর পেছনে ছুটব আমি।’ এবার দেখার বিষয় শক্তিশালী ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৫ দিনের টেস্টে কেমন নেতৃত্ব দেন বুমরাহ। প্রসঙ্গত, করোনার কারণে গত বছরের সেপ্টেম্বরে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে একেবারে শেষ মুহূর্তে ম্যানচেস্টার টেস্ট বাতিল হয়ে যায়। ৫ ম্যাচের টেস্ট সিরিজে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে ছিল ভারত। বাতিল হওয়া ম্যানচেস্টার টেস্ট ১ জুলাই শুরু হবে বার্মিংহ্যামের এজবাস্টন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে।